মেনু নির্বাচন করুন

বর্ষার দিনে প্রাণের জয়গানে খাগড়াছড়ি

জেলা সৃষ্টিঃ ০৭ নভেম্বর, ১৯৮৩ খ্রিস্টাব্দ।

      জেলা সৃষ্টির পটভূমিঃ বৃটিশ সরকার কর্তৃক ১৮৬০ সালে স্বতন্ত্র জেলা ঘোষণা করার আগে পার্বত্য চট্টগ্রাম ছিল বৃহত্তর চট্টগ্রামের একটি অঙ্গ। পার্বত্য চট্টগ্রাম জেলা ০৩টি মহকুমা নিয়ে গঠিত ছিল। মহকুমাগুলি ছিল রাঙ্গামাটি, বান্দরবান ও খাগড়াছড়ি। রামগড় মহকুমা ০৩টি থানা নিয়ে গঠিত ছিল। থানাগুলি ছিল রামগড় সদর, মহালছড়ি ও দীঘিনালা। খাগড়াছড়ি তৎকালীন মহালছড়ি থানাধীন একটি ইউনিয়ন ছিল। পরে ১৯৬৮ খ্রিষ্টাব্দে খাগড়াছড়িকে থানায় উন্নীত করা হয়েছিল। অতঃপর ১৯৮৩ খ্রিষ্টাব্দের ০৭ নভেম্বর তারিখে খাগড়াছড়ি পূর্ণাঙ্গ জেলায় রূপান্তরিত হয়। প্রাচীন জনপদ ও নগরী হিসেবে রামগড় নামে জেলা ঘোষণা করাটা স্বাভাবিক হলেও খাগড়াছড়ির ভৌগলিক অবস্থান, পারিপার্শ্বিক অবস্থা, যোগাযোগ সুবিধা প্রভৃতি রামগড়ের চেয়ে অধিকতর সুবিধাজনক স্থান বিধায় সরকার খাগড়াছড়িকে জেলা ঘোষণা করে। খাগড়াছড়ি নামের উৎপত্তি হয়েছিল নল খাগড়ার বন থেকে। খাগড়াছড়ি সদর শহরের বুকচিরে একটি ছড়ানদী বহমান রয়েছে। অতীতে উক্ত ছড়ানদীর দু’পাড়ে গভীর নলখাগড়ার বন ছিল। এই নল খাগড়ার বন থেকে খাগড়াছড়ি নামের উৎপত্তি। খাগড়াছড়ির প্রাচীন নাম ছিল তারক।

      সীমানাঃ উত্তর ও উত্তর-পশ্চিমে ভারতের ত্রিপুরা রাজ্য, পূর্ব ও দক্ষিণ-পূর্বে রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা, দক্ষিণ-পশ্চিমে চট্টগ্রাম জেলা এবং পশ্চিমে ফেণী নদী ও ভারতের ত্রিপুরা রাজ্য।

      আয়তনঃ ২,৬৯৯.৫৬ বর্গ কিঃমিঃ।